ইসরাইলকে বয়কটের ডাক অসলো বিশপের

ফিলিস্তিনের অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকার সাধারণ জনগণের ওপর দখলদার ইসরাইলের বর্বর হত্যাযজ্ঞের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে যে ঐক্যের সুর বেজে উঠেছে, তাতে কণ্ঠ মিলিয়েছেন নরওয়ের রাজধানী অসলোর বিশপ ক্যারি ভিতেবার্গ।

তিনি ইসরাইলকে বয়কট করার জন্য নরওয়ের গির্জার প্রধানদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। খবর তাসনিম নিউজের।

বিশপ ভিতেবার্গ বলেছেন, আমি বিশ্বাস করি সাধারণ বয়কট আন্দোলন হতে পারে ফিলিস্তিনে ইসরাইলি দখলদারিত্বের বিরুদ্ধে সেরা অহিংস প্রতিরোধ আন্দোলন।

তিনি আরও বলেন, আন্তর্জাতিক আইনের আওতায় ফিলিস্তিনি জনগণের জন্য আর্থিক সহায়তা করার নৈতিক ও আইনি বাধ্যবাধকতা রয়েছে।

আমরা নরওয়ের গির্জাগুলোর প্রতি ‘ইসরাইল বয়কট’ আন্দোলনে যুক্ত হওয়ার আহ্বান জানাই। আমরা মনে করি- সমস্যার সমাধান ও শান্তি আনার জন্য ইসরাইল থেকে পুঁজি প্রত্যাহার এবং তেলআবিবের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা আরোপ ভালো উপায় হতে পারে।

গাজা উপত্যকার ওপর ইহুদিবাদী ইসরাইলের সাম্প্রতিক আগ্রাসনের পর বিশপ ক্যারি ভিতেবার্গ তার ফেসবুক পেজে এসব কথা লিখেছেন।

এ আহ্বানে সমালোচনার মুখেও পড়েছেন তিনি। অসলোর ন্যাশনাল কনজারভেটিভ প্রগ্রেসিভ পার্টির নেতা ও অসলোর এমপি ক্রিশ্চিয়ান টাইব্রিং জিজেদ্দে বিশপ ক্যারি ভিতেবার্গকে ইহুদিবিরোধী বলে মন্তব্য করেছেন।

দুই ইসরাইলী সেনাকে ছুরি দিয়ে জখম করে গুলিবিদ্ধ হয়ে শহীদ হলেন ফিলিস্তিনি তরুণ

ইসরাইলের ২ সন্ত্রাসী সেনাকে জখম করার পর গুলিবিদ্ধ হয়ে এক ফিলিস্তিনি তরুণের শাহাদাত বরণ করেছেন।

সোমবার (২৪ মে) দখলকৃত জেরুসালেমের ফ্রেঞ্চ পার্বত্য অঞ্চলে এই ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, সেনাদের গুলিতে শাহাদাত বরণ করার আগে ওই ফিলিস্তিনি তরুণ ছুরি দিয়ে ইহুদিবাদী ইসরাইলের ২ জন সেনার উপর দুঃসাহসিক হামলা চালায় এবং দু’জনের মধ্যে একজনকে গুরুতরভাবে আহত করতে সক্ষম হয়।

হিব্রু মিডিয়া ব্যতীত অন্যান্য মিডিয়াগুলো দু’জন ইহুদিবাদী ইসরাইলীর খুব ভালোভাবেই জখম হওয়ার কথা প্রকাশ করে এবং তাদের মধ্যে একজনকে ইসরাইলের সেনা সদস্য হিসাবে উপস্থাপন করে।

দুঃসাহসিক ছুরি হামলার পর গুলিবিদ্ধ হয়ে শাহাদাত বরণ করা তরুণটির ব্যাপারে প্রকাশিত তথ্য থেকে জানা যায়, তার নাম জাদুল্লাহ আব্দুর রউফ। তার বয়স ১৭ বছর এবং তিনি দখলকৃত ফিলিস্তিনের পূর্ব জেরুসালেমের বাসিন্দা।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়া ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়, ঘটনাস্থলে একজন ফিলিস্তিনি তরুণের নিথর দেহ মাটিতে লুটিয়ে পড়ে আছে।

ইহুদিবাদী ইসরাইলের পুলিশ জায়গাটি ঘিরে রেখেছে। অ্যাম্বুলেন্স সদস্যরা জখমী সেনাদের সাহায্য করা শুরু করেছে এবং ঘটনাস্থল থেকে তাদের সরিয়ে নিচ্ছে।

সূত্র: মিডল ইস্ট মনিটর