পঞ্চগড়ে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে আহত ১২ !

বলরামপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ মনোনিত নৌকার প্রার্থী মো. দেলোয়ার হোসেন ও আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী স্বতন্ত্র প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. সাইদুর রহমানের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে।

শুক্রবার রাতে জেলার আটোয়ারী উপজেলার বলরামপুর ইউনিয়নের ত্রিশুলিয়া গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটেছে। সংঘর্ষে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, পঞ্চগড় জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ বিদ্রোহী প্রার্থী (মোটরসাইকেল প্রতীক) মো. সাইদুর রহমানের ছেলে মাজেদুর রহমান বকুল, ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আব্দুল্লাহ আল আমিনসহ উভয়পক্ষের কমপক্ষে ১২ জন আহত হয়েছে।

আহতরা বোদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। প্রত্যক্ষদর্শী, এলাকাবাসি ও কর্মী সমর্থকরা জানান, বলরামপুর আদর্শ মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ গোলাম মোস্তফা বলরামপুর ইউনিয়নের ত্রিশুলিয়া গ্রামের দেলোয়ার হোসেন মুন্সির বাড়িতে যান।

এসময় আওয়ামী লীগ দলীয় প্রার্থী মো. দেলোয়ার হোসেনের সমর্থকরা ওই বাড়ি ঘেরাও করে অধ্যক্ষ গোলাম মোস্তফাকে অবরুদ্ধ করে রাখে। খবর পেয়ে মাজেদুর রহমান বকুল ও আব্দুল্লাহ আল আমিন মোটরসাইকেলে ১০/১২ জন কর্মী অধ্যক্ষ গোলাম মোস্তফাকে উদ্ধার করতে সেখানে যান। এসময় আকষ্মিক নৌকার সমর্থকরা তাদের ওপর লাঠিসোটা, গাছের ডালপালা দিয়ে হামলা চালায়।

এসময় এরাও দেলোয়ার মুন্সির বাড়ির ভেতরে প্রবেশ করে। এরপর বাড়ির লোকজন গেট লাগিয়ে দিলে ক্ষুব্ধ নৌকার সমর্থকরা ওই বাড়িতে ঢিল ছুড়ে ও হামলা চালিয়ে জানালা দরজা ভাংচুর করে। খবর পেয়ে আটোয়ারী থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করে।

এলাকায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে। উভয় প্রার্থী সংঘর্ষের ঘটনায় একে অপরকে দায়ি করেছেন।

সুত্র: বিডি-প্রতিদিন

আরো পড়ুন: এবার পহেলা জানুয়ারিতে বই উৎসব হবে না: শিক্ষামন্ত্রী

পহেলা জানুয়ারি বই উৎসব হবে না বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা, দীপু মনি। তিনি বলেন, বই উৎসব না হলেও দেশের ৯৫ শতাংশ স্কুলে ৩১ ডিসেম্বরের ভিতর বই পৌঁছে যাবে। তবে বাকি ৫ ভাগ স্কুলে বই জানুয়ারির প্রথম সপ্তাহের ভিতর বই পৌঁছাবে।

বৃহস্পতিবার (২৩ ডিসেম্বর) বেলা ১১টায় রাজধানীর মাতুয়াইলের পাঠ্যপুস্তক ছাপাখানায় কাজের অগ্রগতি পরিদর্শনকালে তিনি এসব কথা বলেন। শিক্ষামন্ত্রী বলেন, এ বছর থেকে নতুন কারিকুলাম শুরু হবে, তবে ভর্তি প্রক্রিয়া শেষ হবে জানুয়ারির শেষ নাগাদ।

তাই ফেব্রুয়ারি থেকে নতুন কারিকুলাম শুরু করার আগে আমরা ১০০টি স্কুলে নতুন কারিকুলামের গবেষণা চালাবো ভেবেছিলাম। তবে সেটি কমিয়ে ৬০টি স্কুল করা হয়েছে। তিনি বলেন, ওই স্কুলগুলোতে প্রাথমিক পর্যায়ে প্রথম শ্রেণির শিক্ষার্থী ও মাধ্যমিক পর্যায়ে ষষ্ঠ শ্রেণির শিক্ষার্থীদের বই দেয়া হবে।

বাকিদের জানুয়ারি মাসেই ধাপে ধাপে বই দেয়া হবে। দীপু মনি বলেন, বিশ্বজুড়ে ওমিক্রন ছড়াচ্ছে, তবে সার্বিক বিষয় সরকার পর্যবেক্ষণ করছে। এখন পর্যন্ত পরিস্থিতি ভাল আছে। তবে মার্চে গিয়েও যদি পরিস্থিতি স্বাভাবিক থাকে তাহলে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান স্বাভাবিক কার্যক্রমে ফিরবে

আরো পড়ুন: এই প্রথম কোনো মুসলিমকে ধর্মীয় স্বাধীনতা বিষয়ক দূত বানাল আমেরিকা !

রাশাদ হোসাইনকে আমেরিকার আন্তর্জাতিক ধর্মীয় স্বাধীনতাবিষয়ক দূত হিসেবে অনুমোদন দিয়েছে দেশটির সিনেট। এটি আমেরিকার ইতিহাসে মুসলিম হিসেবে প্রথম দায়িত্ব পেলেন রাশাদ হোসাইন।

এর আগে জুলাইয়ে আমেরিকার প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন রাশাদকে এ পদের জন্য মনোনয়ন দেন। বৃহস্পতিবার (১৬ ডিসেম্বর) সিনেটে এ বিষয়ে ভোট অনুষ্ঠিত হওয়ার মাধ্যমে এই পদে নিযুক্ত হন রাশাদ হোসাইন।এতে রাশাদের নিয়োগের বিষয়টি পাস হয় ৮৫-৫ ভোটে।

এর আগে রাশাদ অরগানিজেশন অব ইসলামিক করপোরশেনে (ওআইসি) আমেরিকার বিশেষ দূত, কৌশলগত সন্ত্রাসদমনবিষয়ক বিশেষ দূত এবং বারাক ওবামার প্রশাসনে হোয়াইট হাউস কাউন্সিলের উপসহযোগী ছিলেন।

সিনেটের এ পদক্ষেপকে স্বাগত জানিয়েছে মুসলিমদের অধিকার নিয়ে কাজ করা আমেরিকার বৃহত্তম সংস্থা দ্য কাউন্সিল অন আমেরিকান-ইসলামিক রিলেশন্স

আরো পড়ুন : সৌদিতে তাবলিগ জামাত নিষিদ্ধ, সতর্কতা জারি !

তাবলিগ জামাতের কার্যক্রম নিষিদ্ধ করে সতর্কতা জারি করেছে সৌদি আরব। এরই ধারাবাহিকতায় জুমার নামাজের খুতবায় এ সংগঠন সম্পর্কে মানুষকে সতর্ক করার নির্দেশ দিয়েছেন দেশটির ইসলাম বিষয়ক মন্ত্রী ডা. আব্দুললতিফ আল শেখ।

গত সোমবার এক টুইট বার্তায় এ নির্দেশনা জানানো হয়। টুইট বার্তায় এ সংগঠনকে সন্ত্রাসবাদের অন্যতম ‘কেন্দ্র’ উল্লেখ করে এর বিপথগামীতা, বিচ্যুতি ও ভয়াবহতার নানা দিক মুসল্লিদের কাছে তুলে ধরতে বলা হয়। এছাড়াও সংগঠনটির প্রধান ভুলগুলো মানুষের সামনে তুলে ধরার নির্দেশ দেওয়া হয়।

টুইট বার্তায় আরও জানানো হয়, সৌদি আরবে তাবলিগ ও ‘দাওয়াহ’ গ্রুপ অর্থাৎ ধর্মপ্রচারের পক্ষপাতমূলক দলগুলোর সঙ্গে সম্পৃক্ততা নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এদিকে বিশ্বব্যাপী কার্যক্রম ছড়িয়ে থাকা শত বছরের পুরোনো তাবলিগ জামাতের যাত্রা ভারতের শুরু হয়েছিল।

সাধারণ মুসলিমদের মধ্যে ইসলামের নির্দেশনা পালনের উৎসাহ দেওয়াই এ সংগঠনটির প্রধান ও মৌলিক কাজ বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা। তাই বিভিন্ন দেশের ইসলামিক স্কলাররা সৌদি সরকারের এ সিদ্ধান্তে নিন্দা জানিয়েছেন। তাবলিগ জামাত ভারতের দেওবন্দভিত্তিক সুন্নি মুসলিমদের ইসলাম প্রচারের সংগঠন।

অপরদিকে সৌদি নেতৃবৃন্দ ওয়াহাবি ও আহলে হাদিস মতাদর্শের অনুসারী বলে পরিচিত। ফলে আগ থেকেই সৌদিতে প্রকাশ্যে তাবলিগের কোনো কার্যক্রম ছিল না। তবে এবারই প্রথম তাবলিগ জামাতের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদের অভিযোগ তুলেছে ইসলামের প্রধান কেন্দ্রভূমি দেশটি

আরো পড়ুন: মিশরের আল-আজহার বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি শাখা চালু হচ্ছে রাজশাহীতে।

আল-আজহার কর্তৃপক্ষ শহরের দারুস সালাম কামিল মাদ্রাসায় তাদের একটি প্রাক-বিশ্ববিদ্যালয় শাখা চালুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ঢাকার মিশর দূতাবাসের ডেপুটি মরিয়ম এম রাগেই বৃহস্পতিবার (৪ নভেম্বর) মাদ্রাসা পরিদর্শনে যান।

পরে তিনি রাজশাহী সিটি করপোরেশনের (রাসিক) মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। ওই দিন দুপুরে নগর ভবনে সাক্ষাতকালে তাকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান মেয়র লিটন।

পরে রাজশাহী দারুস সালাম কামিল মাদ্রাসা ক্যাম্পাসে মিসরের আল-আজহারের প্রাক-বিশ্ববিদ্যালয় শাখা চালুর বিষয়ে আলোচনা করেন তারা। এর আগে মরিয়ম এম রাগেই মাদ্রাসাটি পরিদর্শনে গিয়ে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন।

সংশ্লিষ্টরা জানান, আল-আজহার বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক-বিশ্ববিদ্যালয় শাখা চালুর বিষয়টি এরই মধ্যে অনুমোদিত হয়েছে। বাংলাদেশে রাজশাহীরআল-আজহার বিশ্ববিদ্যালয়ের শাখা চালু হচ্ছে বাংলাদেশে দারুস সালাম কামিল মাদ্রাসার ক্যাম্পাসে শাখাটি চালুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্তৃপক্ষ।

এখানে দুই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সমন্বয়ে নার্সারি থেকে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত পাঠদান করা হবে। এ সময় মেয়র লিটন বলেন, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন, সবুজ, শিক্ষানগরী রাজশাহীতে মিসরের আল-আজহার বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক শাখা চালুর সিদ্ধান্ত গ্রহণ করায় কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।

শিক্ষানগরী রাজশাহীর জন্য এটি হবে অনন্য একটি সংযোজন। এ ব্যাপারে সার্বিক সহযোগিতা করা হবে

আরো পড়ুন: টিভি পর্দায় অশোভন পোশাক ও অশ্লীল দৃশ্য নিষিদ্ধ করলো পাকিস্তান !

টেলিভিশনের পর্দায় অশোভন পোশাক, শয্যাদৃশ্য, আলিঙ্গন, চুম্বন, সংবেদনশীল বিতর্কিত প্লট ও অপ্রয়োজনীয় দৃশ্য সম্প্রচারে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে পাকিস্তান।

চলতি সপ্তাহে পাকিস্তান ইলেক্ট্রনিক মিডিয়া রেগুলেটরি অথরিটি (পেমরা) এ সংক্রান্ত একটি নির্দেশনা জারি করেছে বলে শনিবার আরব নিউজ এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে। ওই নির্দেশনায় বলা হয়েছে, স্যাটেলাইট চ্যানেলগুলোতে প্রচারিত নাটকে এ ধরনের দৃশ্যের সম্প্রচার ইসলামী শিক্ষা ও পাকিস্তানি সংস্কৃতির পরিপন্থী।
নির্দেশনায় আরও বলা হয়েছে, সমাজের এক বড় অংশের দাবি, সম্প্রচারিত নাটকগুলোতে পাকিস্তানি..