এই প্রথম বাইডেন প্রশাসনের গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বে ২ মার্কিন মুসলিম যুবক

    যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন দেশটির গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বে ভারত ও পাকিস্তানের বংশদ্ভুত দুই মুসলিম মার্কিন নাগরিককে মনোনীত করেছেন। শুক্রবার হোয়াইট হাউজ থেকে প্রকাশিত এক বিবৃতিতে এই তথ্য জানানো হয়।

    বিবৃতিতে বলা হয়, ভারতীয় বংশদ্ভুত মার্কিন অ্যাটর্নি রাশেদ হুসেইনকে প্রেসিডেন্ট বাইডেন তার আন্তর্জাতিক ধর্মীয় স্বাধীনতা বিষয়ক অ্যাম্বাসেডর অ্যাট লার্জ হিসেবে মনোনীত করেছেন। অপরদিকে পাকিস্তানি-মার্কিন আইনজীবী খিজির খানকে যুক্তরাষ্ট্রের কমিশন অন ইন্টারন্যাশনাল রিলিজিয়াস ফ্রিডমের কমিশনার হিসেবে মনোনীত করেন বাইডেন।

    রাশেদ হুসেইন বর্তমানে মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদে অংশীদারিত্ব ও বৈশ্বিক সম্পৃক্তকরণ বিষয়ক পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

    অপরদিকে ইরাকে মার্কিন মিশনে অংশ নিয়ে ২০০৪ সালে নিহত মার্কিন সেনাবাহিনীর ক্যাপ্টেন হুমায়ুন খানের বাবা খিজির খান।

    ২০১৬ সালে ডেমোক্রেট ন্যাশনাল কনভেনশনে তৎকালীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের যুক্তরাষ্ট্রে কথিত ‘মুসলিম নিষেধাজ্ঞা’র মাধ্যমে বেশ কয়েকটি দেশ থেকে অভিবাসী আগমনে নিষেধাজ্ঞার ঘোষণার সমালোচনায় বক্তব্যের মাধ্যমে আলোচনায় আসেন তিনি।

    সূত্র : ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস

    আরও সংবাদ

    কোরআন শিক্ষাকে বাধ্যতামূলক করলো পাকিস্তান

    পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশের স্কুলগুলোতে কোরআন শিক্ষাকে বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। প্রথম থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত বাধ্যবাধকতা দেয়া হয়েছে। খবর জিও নিউজের।

    পাঞ্জাব সরকারের পক্ষ থেকে জারি করা বিবৃতিতে বলা হয়, কুরআন বিষয়টিকে প্রথম থেকে দ্বাদশ শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের জন্য বাধ্যতামূলক করা হলো।

    ওই বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, প্রথম থেকে পঞ্চম শ্রেণি পর্যন্ত পাঠ্যসূচিতে কুরআনের নাজেরা তেলাওয়াত বাধ্যতামূলক থাকবে। কুরআনের তর্জমার বিষয়টি গুরুত্ব পাবে ষষ্ঠ থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত।

    এর আগে ২০১৭ সালে পাঞ্জাব সরকারের পক্ষ থেকে স্কুলগুলোতে প্রথম থেকে পঞ্চম শ্রেণী পর্যন্ত কুরআনের নাজেরা বাধ্যতামূলক করা হয়েছিল।